বাবা, তুমি একটা আকাশ,
উষ্ণ তুলোমেঘ প্রফুল্ল পাখির আকাশ;
সেই আকাশে আমরা চিন্তাহীন ডানা ঝাপটানো পাখি।
শত কালো মেঘ, সহস্র বিজলী ঝলসে দেয় তোমায়,
তুমি নিজেকে রোদে পুড়িয়ে আবার হও দীপ্তিময়।

বাবা, তুমি এক চিরদাস—মরুর উট,
পরিবার তোমার পাহাড়-পিঠের বোঝা।
সেই বোঝা তোমার যৌবনের দীপ্তি;
দেহের জৌলুস কুড়ে কুড়ে শুষে নিয়েছে,
হাড্ডিসার তুমি এক মলিন হাসির স্বপ্ন!

বাবা, তুমি ত্যাগী!
জননীর মতো সমভাবে তুমি ত্যাগী!!
কর্মঠ শরীর তোমার ব্যথায় জরাজীর্ণ;
সন্তানের হাসি তোমার পথ্য!
কঠোর-কোমল হৃদয়ে একটা দূর-দূর ভাব তোমার আজন্ম।
তুমি বীর, তুমি মহাবীর সত্য।

বন্ধুদের লেখা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন